1. admin@bangla24bdnews.com : b24bdnews :
  2. robinmzamin@gmail.com : mehrab hossain provat : mehrab hossain provat
  3. maualh4013@gmail.com : md aual hosen : Md. Aual Hosen
  4. tanvirahmedtonmoy1987@gmail.com : shuvo khan : shuvo khan
রবিবার, ২০ সেপ্টেম্বর ২০২০, ০১:৪৭ অপরাহ্ন

করোনাভাইরাসে বাংলাদেশ যে আক্রান্ত হবে না সে আশঙ্কা কোনোভাবেই উড়িয়ে দেয়া যাচ্ছে না: সাঈদ খোকন

স্টাফ রিপোর্টার (বাংলা ২৪ বিডি নিউজ):
  • আপডেট সময় : বৃহস্পতিবার, ৬ ফেব্রুয়ারী, ২০২০
  • ১০৫

বিশেষজ্ঞদের পরামর্শ অনুযায়ী সচেতনতামূলক প্রতিরোধ ব্যবস্থা নিয়ে করোনাভাইরাস মোকাবিলা করতে হবে বলে মন্তব্য করেছেন ঢাকা দক্ষিণ সিটি কর্পোরেশনের মেয়র মোহাম্মদ সাঈদ খোকন। তিনি বলেন, করোনাভাইরাসে বাংলাদেশ যে আক্রান্ত হবে না সে আশঙ্কা কোনোভাবেই উড়িয়ে দেয়া যাচ্ছে না। তাই আগে থেকেই বিশেষজ্ঞ চিকিৎসকদের পরামর্শ প্রয়োজন।

বৃহস্পতিবার (৬ ফেব্রুয়ারি) ডিএসসিসি নগর ভবনে মেয়র মোহাম্মদ হানিফ মিলনায়তনে ‘করোনাভাইরাস প্রতিকার ও করণীয়’ শীর্ষক এক সায়েন্টিফিক সেমিনারে সাঈদ খোকন এসব কথা বলেন।

তিনি বলেন, চীনের সঙ্গে বাংলাদেশের সম্পর্ক অত্যন্ত গভীর। আমরা নিত্যপ্রয়োজনীয় যা কিছু ব্যবহার করছি বেশিরভাগই চায়নার। এমনকি আমাদের সবচেয়ে বড় যে প্রজেক্ট পদ্মা সেতু, সেটিও কিন্তু তারা করছে। এজন্য চাইনিজদের সঙ্গে আমাদের বেশি যোগাযোগ রয়েছে। সে তুলনায় ঢাকা কিংবা বাংলাদেশ এখনও আক্রান্ত হয়নি। তবে আক্রান্তের আশঙ্কা কোনোভাবেই উড়িয়ে দেয়া যায় না। এ বাস্তবতা সামনে রেখে আমাদের বিশেষজ্ঞ চিকিৎসকরা যেভাবে পরামর্শ দিয়েছেন, আমরা সেগুলো মেনে চলে এটিকে মোকাবিলা করতে হবে।

তিনি বলেন, যদি কোনোভাবেই এটি বাংলাদেশে এসে যায়, তবে ভয়ঙ্কর পরিস্থিতি সৃষ্টি হবে। এজন্য আগে থেকেই আমাদের চিকিৎসকদের পরামর্শ অনুযায়ী সচেতনমূলক প্রতিকার ব্যবস্থা নিতে হবে। আমরা আল্লাহর কাছে দোয়া করি যাতে এ সব বালা মুছিবত থেকে তিনি আমাদের রক্ষা করেন।

এ সময় বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ের (বিএসএমএমইউ) উপাচার্য (ভিসি) অধ্যাপক ডা. কনক কান্তি বড়ুয়া বলেন, ‘করোনাভাইরাস নিয়ে আতঙ্কিত না হয়ে প্রতিরোধের বিষয়ে জোর দিতে হবে। কারণ প্রতিরোধই প্রতিকার। আমরা যদি প্রতিরোধে মনোযোগ দেই তাহলে প্রতিকারের বাড়তি কোনো কিছুর প্রয়োজন হবে না। সুতরাং এ রোগের প্রতিকারের চেয়ে প্রতিরোধ গুরুত্বপূর্ণ।

তিনি বলেন, ইতোমধ্যে আমাদের সরকার সতর্কতামূলক ব্যবস্থা নিয়েছে। বন্দরগুলোতে স্ক্যানার বসিয়েছে, যাতে এ রোগ বহনকারী কেউ দেশে প্রবেশ করতে না পারে। এখন শুধু প্রয়োজন আমাদের সচেতনতা।

এ সময় আরও উপস্থিত ছিলেন ডিএসসিসির প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা শাহ মো. ইমদাদুল হক, প্রধান স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ব্রিগেডিয়ার জেনারেল শরীফ আহমেদ, অধ্যাপক ডা. আতিকুর রহমান, অধ্যাপক ডা. শামীম আহমেদ, অধ্যাপক ডা. আফজালুন নেসা, অধ্যাপক ডা. হারিসুল প্রমুখ।

ফেসবুকে আমরা

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ বিভাগের আরও সংবাদ
এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা বা ছবি অনুমতি ছাড়া নকল করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি। সকল স্বত্ব www.bangla24bdnews.com কর্তৃক সংরক্ষিত
Customized By NewsSmart