1. admin@bangla24bdnews.com : b24bdnews :
  2. robinmzamin@gmail.com : mehrab hossain provat : mehrab hossain provat
  3. maualh4013@gmail.com : md aual hosen : Md. Aual Hosen
  4. tanvirahmedtonmoy1987@gmail.com : shuvo khan : shuvo khan
বৃহস্পতিবার, ০৩ ডিসেম্বর ২০২০, ০৮:০৪ অপরাহ্ন

নারায়ণগঞ্জে আ.লীগ নেতার বিরুদ্ধে বীর মুক্তিযোদ্ধাকে লাঞ্ছিতের অভিযোগ

স্টাফ রিপোর্টার (বাংলা ২৪ বিডি নিউজ):
  • আপডেট সময় : বৃহস্পতিবার, ৫ নভেম্বর, ২০২০
  • ৪৭

নারায়ণগঞ্জের সিদ্ধিরগঞ্জে মোজাম্মেল হোসেন নামে এক বীরমুক্তিযোদ্ধাকে লাঞ্ছিত করেছে নাসিক ৭নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর ও সিদ্ধিরগঞ্জ থানা আওয়ামীলীগের যুগ্ম সম্পাদক আলী হোসেন আলা। ঘটনাটি ঘটেছে বৃহস্পতিবার (৫ অক্টোবর) সকালে আদমজীর কদমতলী মধপাড়া দশতলা এলাকায়। ভুক্তভোগী বীরমুক্তিযোদ্ধা মোজাম্মেল হোসেন ইস্ট বেঙ্গল রেজিমেন্টের সার্জেন্ট ছিলেন।
প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, ‘কদমতলী এলাকায় রাস্তা ও ড্রেনের নির্মাণ কাজ শুরু হয়েছে। যার ধারাবাহিকতায় কদমতলী এলাকায় মোজাম্মেল হোসেনের বাড়ির সামনে ড্রেন নির্মাণ করার জন্য ঠিকাদারের শ্রমিকেরা সেখানে কাজ শুরু করেন। এসময় বীরমুক্তিযোদ্ধা মোজাম্মেল হোসেন বাঁধা দেন। খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে ছুটে আসেন কাউন্সিলর আলী হোসেন। পরে বীরমুক্তিযোদ্ধার সঙ্গে কাউন্সিলর আলী হোসেন আলার বাক-বিতন্ডা হয়। এক পর্যায়ে কাউন্সিলর আলী হোসেন আলা বীর মুক্তিযোদ্ধা মোজাম্মেল হোসেনকে ধাক্কা দিয়ে সেখান থেকে সরিয়ে দেন এবং র্দুব্যবহার করেন।
ভুক্তভুগী মোজ্জামেল হোসেন বলেন, ‘আমার বাড়ির সামনে ড্রেন নির্মাণ করবে সেটা আমাদের জন্য অনেক ভালো। আমরা এজন্য সিটি কর্পোরেশনের প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করছি। তবে ড্রেন ও রাস্তার জন্য আমি বাড়ি করার আগেই জায়গা ছেড়ে দিয়েছিলাম। কিন্তু আমার উল্টো দিকে বাড়ির মালিক কোন জায়গা ছাড়েনি। যখন ড্রেন করতে আসছে তখন আবারও জায়গার জন্য আমার বাড়ি ভাঙ্গতে গেলে আমি বাধা দেই। তখন কাউন্সিলরকে অনুরোধ করি যাতে না ভাঙ্গে। আমি ওনাকে বলি যে আমি আগেই জায়গা দিয়ে রেখেছি তাহলে আবার কেন আমার বাড়ি ভাঙ্গবেন। পাশের বাড়িওয়ালা জায়গা ছাড়েনি সেখান থেকে ভাঙেন। এতে তিনি ক্ষিপ্ত হয়ে যান এবং বলেন, সেখানে ফাউন্ডেশন করা বাড়ি ভাঙা যাবে না। এদিক থেকেই ভাঙ্গতে হবে। এতে আমি প্রতিবাদ করলে কাউন্সিলর আমাকে ধাক্কা দিয়ে সরিয়ে দেয়।’
তিনি আরও বলেন, ‘মুক্তিযোদ্ধা হয়ে দেশ স্বাধীন করেছি। আজ নিজের বাড়ির রক্ষা করতে গেলে কাউন্সিলর ধাক্কা দিয়ে সরিয়ে দেয়। বাজে ব্যবহার করে। আমি এর বিচার চাই।’
এদিকে মুক্তিযোদ্ধা লাঞ্ছিতের অভিযোগ অস্বীকার করেন কাউন্সিলর আলী হোসেন আলা। তিনি বলেন, ‘কোন ধাক্কা দেয়া হয়নি। ওনাকে বলেছি রাস্তা সবার জন্য। আর রাস্তা করতে গেলে কারো তিন ফুট যায়, আবার কারো এক ফুট। আর ওই পাশে ফাউন্ডেশন দেওয়া ভবন। যা ভাঙ্গতেও সমস্যা।

ফেসবুকে আমরা

এ বিভাগের আরও সংবাদ
এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা বা ছবি অনুমতি ছাড়া নকল করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি। সকল স্বত্ব www.bangla24bdnews.com কর্তৃক সংরক্ষিত
Customized By NewsSmart