1. admin@bangla24bdnews.com : b24bdnews :
  2. robinmzamin@gmail.com : mehrab hossain provat : mehrab hossain provat
  3. maualh4013@gmail.com : md aual hosen : Md. Aual Hosen
  4. tanvirahmedtonmoy1987@gmail.com : shuvo khan : shuvo khan
বৃহস্পতিবার, ০৩ ডিসেম্বর ২০২০, ০৭:৩০ অপরাহ্ন

নেত্রী চাইলে থাকব : ওবায়দুল কাদের

স্টাফ রিপোর্টার (বাংলা ২৪ বিডি নিউজ):
  • আপডেট সময় : সোমবার, ৯ ডিসেম্বর, ২০১৯
  • ২২৪

আওয়ামী লীগের সভাপতি পদে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাই থাকবেন বলে জানিয়েছেন দলের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের।

সোমবার দুপুরে সচিবালয়ে সমসাময়িক বিষয়ে সাংবাদিকদের ব্রিফিংকালে তিনি এ কথা জানান।

আসন্ন কাউন্সিলে আওয়ামী লীগের সভাপতি কে হচ্ছেন, এ বিষয়ে জানতে চাইলে ওবায়দুল কাদের বলেন, কাউন্সিলে সভাপতি পদে পরিবর্তনের কোনো সম্ভাবনা নেই। নেত্রী তো বারবার বিদায় নিতে চেয়েছেন। তিনি যেতে চাইলেও তাকে যেতে দেয়া যায় না।

সম্ভাব্য সাধারণ সম্পাদক প্রসঙ্গে দৃষ্টি আকর্ষণ করা হলে তিনি বলেন, প্রধানমন্ত্রী চাইলে দলের দায়িত্ব পালন করব। দায়িত্ব পালনে আমি কোনো চাপের মুখে নেই। আল্লাহর রহমতে আমি শারীরিকভাবেও সুস্থ আছি।

আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় সম্মেলনে কেউ বাদ যাচ্ছেন কি না, জানতে চাইলে ওবায়দুল কাদের বলেন, এটা আসলে আমাদের মন্ত্রিসভার মতোই ব্যাপার। মন্ত্রিসভায় কোনো পরিবর্তন চাইলে প্রাইম মিনিস্টার করে থাকেন। তবে এখানে পারফরম্যান্সের বিষয় আছে। যারা নন-পারফর্মার তাদেরকে বড় বড় দায়িত্বে রেখে কোনো লাভ নেই। তবে যাদের পারফরম‌্যান্স অনেক দুর্বল, সেসব পদে-নেতৃত্বে পরিবর্তন হতে পারে। আর আমাদের এখান থেকে কেউ বাদ যায় না, শুধু দায়িত্বের পরিবর্তন হয়।

দলে ৩৩ শতাংশ নারী নেতৃত্ব নিশ্চিত হচ্ছে কি না, জানতে চাইলে তিনি বলেন, আমাদের সেটা মাথায় আছে। নারী নেতৃত্ব আমাদের সংগঠনে বাড়ানোর ব্যাপারে আমরা আরো চিন্তাভাবনা করছি।

মন্ত্রিসভা থেকে বাদ পড়বেন ব্যর্থরা :

মন্ত্রিসভায় যারা ভালো করতে পারবেন না, তাদের সরিয়ে দেয়া হবে বলে জানিয়েছেন আওয়ামী লীগের এ শীর্ষ নেতা।

এক প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, মন্ত্রিসভায় যারা ভালো করবে না, তাদের দায়িত্বে পরিবর্তন আনা হবে। যারা নিজ নিজ কাজে ব্যর্থ হয়েছেন তাদের সরিয়ে দেয়া হবে।

কেবিনেটে এখন ব্যর্থ মন্ত্রী আছেন কি না, এ প্রশ্নের জবাবে ওবায়দুল কাদের বলেন, আমি নিজেও মন্ত্রী। আরেকজন মন্ত্রীর ব্যাপারে এমন মন্তব্য কীভাবে করতে পারি, বলেন। এটা বলা কঠিন। আর এ বিষয়ে জবাবদিহিতা যার কাছে, তিনি সেটার মূল্যায়ন করবেন।

এ বছরে মন্ত্রিসভায় কোনো পরিবর্তন আসছে কি না, এ প্রশ্নের জবাবে সেতুমন্ত্রী বলেন, সেটা আমি এই মুহূর্তে বলতে পারছি না। এটা তো প্রাইম মিনিস্টারের ব্যাপার। এবছর এটার সম্ভাবনা খুবই কম। আর নতুন বছরে সেটা হবে কি না, এটা প্রধানমন্ত্রীর সিদ্ধান্তের ব্যাপার। আর কেবিনেট রিসাফল করার বিষয়টি তো রুটিন ওয়ার্ক। এটা বিশ্বের বিভিন্ন দেশেও হয়। আমাদের দেশে বিষয়টি আমাদের সরকারপ্রধান ঠিক করবেন।

সম্প্রতি নারায়ণগঞ্জে সড়ক পরিবহন আইন নিয়ে সাবেকমন্ত্রী ও বাংলাদেশ সড়ক পরিবহন শ্রমিক ফেডারেশনের কার্যকরী সভাপতি শাজাহান খানের বক্তব্য সম্পর্কে জানতে চাইলে সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেন, বক্তৃতার ভাষাটা ভিন্ন। ওখানে তিনি শ্রমিক ফেডারেশনের নেতা। সেই হিসেবে তাদেরকে খুশি রাখতে তাকে কিছু কথা বলতে হয়। আমাদের কাছে তো এসব কথা বলেন না।

শাজাহান খানের বক্তব্যে সরকার বিব্রত কি না? জবাবে সেতুমন্ত্রী বলেন, এখানে সরকারের বিব্রত হওয়ার কোনো কারণ নেই। এখানে সরকার তার নিজস্ব গতিতে চলবে। সরকারপ্রধান শেখ হাসিনা যে নির্দেশনা দেবেন, সেভাবে সরকার চলবে, আইনের বাস্তবায়ন হবে। এখানে কারো ব্যক্তিগত ইচ্ছায় কিছু হয় না। আমি মন্ত্রী, আমার নিজের ইচ্ছাতেও কিছু হয় না। আইন তার নিজস্ব গতিতে চলবে।

উল্লেখ্য, রোববার নারায়ণগঞ্জে এক অনুষ্ঠানে শাজাহান খান সড়কে দুর্ঘটনা ও সড়ক নিরাপত্তা আইন নিয়ে বলেছিলেন, আমি দীর্ঘদিন ধরেই অনেক কিছু হজম করেছি। এখন বদহজম হয়ে গেছে। সেজন্য কিছু সত্য কথা বলতে হবে। তবে সত্য বললে সরকারের ঘাড়ে যাবে, নয়তো বিআরটিএর ঘাড়ে যাবে। আর না বললে আমরা পাবলিকের গালি খাব।

ফেসবুকে আমরা

এ বিভাগের আরও সংবাদ
এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা বা ছবি অনুমতি ছাড়া নকল করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি। সকল স্বত্ব www.bangla24bdnews.com কর্তৃক সংরক্ষিত
Customized By NewsSmart