1. admin@bangla24bdnews.com : b24bdnews :
  2. robinmzamin@gmail.com : mehrab hossain provat : mehrab hossain provat
  3. maualh4013@gmail.com : md aual hosen : Md. Aual Hosen
  4. tanvirahmedtonmoy1987@gmail.com : shuvo khan : shuvo khan
মঙ্গলবার, ১৯ জানুয়ারী ২০২১, ০৮:৫৯ পূর্বাহ্ন
সদ্য সংবাদ
রাষ্ট্রপতির সঙ্গে সৌজন্য সাক্ষাৎ করলেন প্রধানমন্ত্রী করোনায় সারাদেশে ২৪ ঘন্টায় আরও ১৬ জনের মৃত্যু নড়াইলে শিশুদের চিত্রাঙ্কন ও সাংস্কৃতিক প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত ধর্ষণ মামলার প্রতিবেদনে গরমিল: সিভিল সার্জন-এসপিকে হাইকোর্টে তলব `ভোট ডাকাতি করে ক্ষমতাসীনরা পৌরসভা দখল করেছে ‘ পৌরসভা নির্বাচন অংশগ্রহণমূলক হয়নি : মাহবুব তালুকদার সান্তাহার পৌরসভা তৃতীয়বারের মতো মেয়র হলেন বিএনপির ভুট্টু মোংলা পোর্ট পৌরসভায় মেয়রসহ ১৩ কাউন্সিলর প্রার্থীর ভোট বর্জন নড়াইল ও কালিয়া পৌর নির্বাচনে আ’লীগের দুই বিদ্রোহী প্রার্থীকে বহিষ্কার বগুড়ায় টিভি দেখতে না দেয়ায় স্কুল ছাত্রীর আত্মহত্যা

সম্মেলনে দূর থেকে প্রধানমন্ত্রীকে দেখলেন শতবর্ষী ইসাহাক

স্টাফ রিপোর্টার (বাংলা ২৪ বিডি নিউজ):
  • আপডেট সময় : শুক্রবার, ২০ ডিসেম্বর, ২০১৯
  • ২৫৪

প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে দেখা করে কৃষকের বিভিন্ন সমস্যা নিয়ে কথা বলতে চান কুষ্টিয়া থেকে আওয়ামী লীগের সম্মেলনে যোগ দিতে আসা ১০২ বছর বয়সী ইসাহাক আলী। একই সঙ্গে কুষ্টিয়া সদর উপজেলার আব্দালপুর ইউনিয়নের তার গ্রামের কিছু উন্নয়ন ও সমস্যার কথাও বলতে চান প্রধানমন্ত্রীকে। বলতে চান জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের সঙ্গে ধানমন্ডি ৩২ নম্বর এবং যশোরে দেখা করে স্মৃতিচারণমূলক কিছু কথা।

শুক্রবার রাত পৌনে ৯টায় মুঠোফোনে বাংলা২৪ বিডি নিউজের সঙ্গে আলাপকালে প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে দেখা করার এমন ইচ্ছের কথা জানান কুষ্টিয়া সদর থানা আওয়ামী লীগের সিনিয়র সহ-সভাপতি ইসাহাক আলী।

বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের ২১তম সম্মেলনে যোগ দিতে প্রবীণ এ রাজনীতিবিদ তিনদিন আগেই ঢাকায় এসেছেন। উঠেছেন রাজধানীর শেওড়াপাড়ায় মেয়ের বাড়িতে। শুক্রবার সকালে নাতিকে নিয়ে হাজির হন সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে আওয়ামী লীগের সম্মেলনে। সারাদিন সম্মেলনে থেকে প্রধানমন্ত্রীর বক্তব্য শুনেই রাত ৯টায় বাসায় পৌঁছান।

বয়সের ভারে কাঁপা কাঁপা কণ্ঠে ইসাহাক আলী বলেন, আওয়ামী লীগের প্রায় সবগুলো সম্মেলনেই অংশগ্রহণ করেছি। কিন্তু কখনও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সঙ্গে কথা বলা বা দেখা করার সুযোগ হয়নি। শুধু দূর থেকে উনাকে দেখি। কাছে গিয়ে কথা বলার ইচ্ছে বহুদিনের।

তিনি বলেন, ধানমন্ডির বাসায় বঙ্গবন্ধুর সঙ্গে বেশ কয়েকবার দেখা করেছি। ওই সময় প্রধানমন্ত্রী বিশ্ববিদ্যালয়ে পড়তেন। এরপর যশোরে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান, ফজলুল হক ও সোহরাওয়ার্দীর সঙ্গে দেখা হয়েছে। কথা হয়েছে। অনেক স্মৃতি রয়েছে তাদের সঙ্গে।

ইসাহাক আলী বলেন, সর্বশেষ যশোরে দেখা হওয়ার পরপরই যোগ দেই তেভাগা ও ভাষা আন্দোলনে। এরপর মুক্তিযুদ্ধে।

দীর্ঘ এ রাজনৈতিক জীবনে এলাকায় অসংখ্য স্কুল, কলেজ ও মাদরাসার উন্নয়নে কাজ করেছেন উল্লেখ করে তিনি বলেন, বঙ্গবন্ধুর সঙ্গে দেখা হওয়ার পরপরই সিদ্ধান্ত নেই আওয়ামী লীগে যোগ দেয়ার। তখন থেকে আজ পর্যন্ত আছি আওয়ামী লীগ পরিবারের সঙ্গে। যতদিন শরীর চলবে ততদিন থাকব। আমার রক্তে আওয়ামী লীগ বলেই এ প্রতিবেদককে বলেন সারাদিন অনেক কষ্ট হয়েছে পরে কথা হবে।

ফেসবুকে আমরা

এ বিভাগের আরও সংবাদ
এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা বা ছবি অনুমতি ছাড়া নকল করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি। সকল স্বত্ব www.bangla24bdnews.com কর্তৃক সংরক্ষিত
Customized By NewsSmart