পৌর নির্বাচন প্রকল্প বন্ধ রাখতে পরিকল্পনা মন্ত্রণালয়কে ইসির নির্দেশ

0
4

ঢাকা (বাংলা ২৪ বিডি নিউজ): নির্বাচনী এলাকায় উন্নয়ন প্রকল্প বন্ধ রাখতে পরিকল্পনা মন্ত্রণালয়কে নির্দেশ দিয়েছে নির্বাচন কমিশন (ইসি)। তফসিল ঘোষণার দিন থেকে ফলাফল প্রকাশের আগ পর্যন্ত প্রকল্প অনুমোদন ও অর্থ ছাড় না দিতে চিঠিতে অনুরোধ করা হয়েছে। নির্বাচন প্রভাবমুক্ত রাখতেই এ নির্দেশ দিয়েছে ইসি।

নির্বাচন কমিশন সচিবালয়ের উপসচিব স্বাক্ষরিত চিঠি পরিকল্পনা মন্ত্রণালয়ের সচিব বরাবর পাঠানো হয়েছে। জাতীয় অর্থনৈতিক পরিষদের নির্বাহী কমিটির (একনেক) বৈঠকের আগে সোমবার এ নির্দেশনা দেওয়া হল।

মঙ্গলবার শেরেবাংলা নগরের এনইসি মিলনায়তনে প্রধানমন্ত্রীর সভাপতিত্বে একনেক বৈঠকের কথা রয়েছে। সেখানে ৭টি প্রকল্প অনুমোদন পেতে পারে, যেগুলোর অধিকাংশই নির্বাচনী এলাকায় অবস্থিত।

পাঠানো চিঠিতে বলা হয়েছে, নির্বাচনের তফসিল ঘোষণার দিন থেকে ফলাফল প্রকাশের আগ পর্যন্ত নির্বাচনী এলাকায় কোনো ধরনের উন্নয়ন প্রকল্পের অনুমোদন দেওয়া যাবে না।’

‘পৌরসভার মেয়র বা কাউন্সিলর বা অন্য কোনো পদাধিকারী সংশ্লিষ্ট এলাকায় উন্নয়নমূলক কোনো প্রকল্পঅনুমোদনবা ইতোপূর্বেঅনুমোদিতকোনোপ্রকল্পে অর্থছাড় বা প্রদান করতে পারবেননা।’

এ বিষয়ে উপসচিব সামসুল আলম বলেন, ‘প্রকল্পের অনুমোদন না দিতে পরিকল্পনা মন্ত্রণালয়কে সকালে মোখিকভাবে নিষেধ করা হয়েছে। তারপরও ফরমালি চিঠি দিয়ে নিষেধ করা হয়েছে।’

‘চিঠিতে নির্বাচনী এলাকায় এ ধরনেরপ্রকল্পসংক্রান্ত কার্যক্রম স্থগিতে অনুরোধ জানানো হয়েছে,’ বলেন তিনি।

উপসচিব জানান, নির্বাচনের তফসিল ঘোষণার পর থেকে সব ধরনেরউন্নয়নমূলক প্রকল্পঅনুমোদন ও অর্থছাড় বন্ধ রাখতে বলা হয়েছে। কারণ নির্বাচনকালীন এসব উন্নয়নমূলক কাজ হলে নির্বাচন প্রভাবিত হওয়ার সম্ভাবনা থাকে।

গত ২ ডিসেম্বর স্থানীয় সরকার মন্ত্রণালয়, খাদ্য মন্ত্রণালয়, মহিলা ও শিশু বিষয়ক মন্ত্রণালয় ও দুর্যোগ ব্যবস্থা ও ত্রাণ মন্ত্রণালয়কে সব ধরনের প্রকল্প বন্ধ রাখতেও চিঠি দেয় ইসি।

নির্বাচনী আচরণ বিধিমালাতে বলা হয়েছে, ‘নির্বাচন পূর্ব সময়ে কোনো সরকার, আধা-সরকারি ও স্বায়ত্তশাসিত প্রতিষ্ঠানে রাজস্ব বা উন্নয়ন তহবিলভুক্ত কোনোপ্রকল্পেরঅনুমোদন, ঘোষণা বা ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন কিংবা ফলক উন্মোচন করা যাবেনা।’

বিধিতে আরও বলা হয়েছে, কোনো সরকারি সুবিধাভোগী অতি গুরুত্বপূর্ণ ব্যক্তি সরকার বা আধা-সরকারি বা স্বায়ত্তশাসিত প্রতিষ্ঠানের তহবিল হতে কোনো ব্যক্তি বা গোষ্ঠী বা প্রতিষ্ঠানের অনুকূলে কোনো প্রকার অনুদান ঘোষণা বা বরাদ্দ কিংবা ছাড় দিতে পারবেনা।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here