চট্টগ্রামে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর অনুষ্ঠানে চেয়ার ছোড়াছুড়ি

0
4

চট্টগ্রাম (বাংলা ২৪ বিডি নিউজ):  চট্টগ্রামের বোয়ালখালীতে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামালের উপস্থিতিতে বিশৃঙ্খলা চেয়ার ছোড়াছুড়ি আর হাতাহাতির মধ্য দিয়ে উদ্বোধন করা হয়েছে নতুন ফায়ার সার্ভিস স্টেশন।

শনিবার বিকেলে পুলিশী নিরাপত্তার নামে উপস্থিত দর্শকদের কিলঘুষি লাঠিপেটা করা হয়। চেয়ার ছোড়াছুঁড়ির ঘটনা ঘটেছে। এসময় পুলিশের নাজেহাল থেকে রেহাই পাননি সাংবাদিকরাও।

জানা গেছে, ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্স স্টেশন উদ্বোধনী অনুষ্ঠানকে ঘিরে সকাল থেকে নেওয়া হয় নিরাপত্তা। দুপুর ২টা থেকে অনুষ্ঠান স্থলে বিভিন্ন এলাকা থেকে দর্শক ও ১৪ দলের নেতা কর্মীরা জড়ো হতে থাকেন। বিকেল ৪টার দিকে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামাল অনুষ্ঠানে পৌঁছার সময় বোয়ালখালী থানার পুলিশ পরিদর্শক (তদন্ত) মো. আলমগীরের নেতৃত্বে নিরাপত্তার নামে দর্শকদের ধাক্কা ও কিলঘুষি মেরে শৃঙ্খলা রক্ষার চেষ্টা চালায় পুলিশ।

মন্ত্রী অনুষ্ঠানস্থলে পৌঁছার পর ছাত্রলীগের বিশাল মিছিল অনুষ্ঠানে ঢুকে পড়লে ভেঙে পড়ে সকল প্রটোকল। এসময় ব্যাপক বিশৃঙ্খলা দেখা দেয়। মন্ত্রী মঞ্চে উঠার পর জাতীয় সংগীত পরিবেশনের সময় বিশৃঙ্খলা হাতাহাতিতে রূপ নেয়।

পরে জেলা আওয়ামী লীগ সভাপতি মোছলেম উদ্দীন আহমদকে হস্তক্ষেপে পরিস্থতি স্বাভাবিক হয়। বিশৃঙ্খল অবস্থার জন্য আয়োজকদের সমন্বয়হীনতাকে দায়ী করলেন, দর্শক ও আওয়ামী নেতা কর্মীরা।

সুশৃঙ্খল অনুষ্ঠান না করতে না পারায় স্বরাণষ্ট্রমন্ত্রীর কাছে দু:খ প্রকাশ করে স্থানীয় সংসদ সদস্য জাসদ নেতা মঈন উদ্দীন খান বাদল বলেন, ‘আমি এটা আশা করিনি। জাতীয় সংগীত গাওয়া হচ্ছে অথচ চিৎকার চেঁচামেচি ও হুড়োহুড়িতে অনুষ্ঠানে সৌন্দর্য নষ্ট হয়ে যায়।’

উল্লেখ্য বোয়ালখালী দীর্ঘদিনের প্রত্যাশিত ফায়ার সার্ভিস সিভিল ডিফেন্স স্টেশন বিকেল ৪টায় উদ্বোধন করেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামাল। এছাড়া তিনি ফায়ার ব্রিগেট চত্বরে উদ্বোধনী সভায় প্রধান অতিথি’র বক্তব্য রাখেন।

এসময় তিনি বলেন, ‘দুর্যোগ মোকাবেলা ৪২ হাজার স্বেচ্ছাসেবক তৈরি করা হয়েছে। ফায়ার সার্ভিস শুধু আগুন মোকাবেলা নয় সবধরনের দুর্যোগে ভূমিকা রাখবে।’

উপজেলা চেয়ারম্যান আতাউল হকের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি ছিলেন, দক্ষিণ জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি মোছলে উদ্দীন আহমেদ, সহ-সভাপতি এস এম আবুল কালাম, তথ্য ও গবেষণা সম্পাদক আবদুল কাদের সুজন, চট্টগ্রাম রেঞ্জের ডিজিপি সফিকুল ইসলাম, ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্স এর মহাপরিচালক ব্রিগেডিয়ার আলী আহাম্মেদ খান, উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক নুরুল আলম, যুগ্ম সম্পাদক এসএম সেলিম, সহ-সভাপতি আহমদ হোসেন, জাসদ সভাপতি হাজী মনছফ আলী, সাধারণ সম্পাদক মনির উদ্দীন খান, জেলা পুলিশ সুপার হাফিজ আকতার, এএসপি শামীম হোসেন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here