পানি ও বিদ্যুতের দাবীতে তিস্তা ব্যারাজের কর্মকর্তা কর্মচারীদের বিক্ষোভ

0
4

নীলফামারী প্রতিনিধি (বাংলা ২৪ বিডি নিউজ): দেশের সর্ববৃহত সেচ প্রকল্প তিস্তার ব্যারাজের কর্মকর্তা, কর্মচারীদের বাসভবনে পানি ও বিদ্যুত না থাকার কারনে মঙ্গলবার দুপুরে বিক্ষোভ সমাবেশ করেছে। ডালিয়া দোয়ানী সিবিএ অফিসে থেকে বিক্ষোভ মিছিল বের হয়ে পানি উন্নয়ন বোর্ড অফিসে এসে শেষ হয়। বক্তাদের অভিযোগ দেশের সর্ববৃহত সেচ প্রকল্প তিস্তা ব্যারেজ ডালিয়া ডিভিশনের কোয়াটারে বসবাসরত কর্মকর্তা কর্মচারীরা গত ২দিন থেকে বিদ্যুত ও পানি পাচ্ছে না। যান্ত্রিক বিভাগের বিদ্যূতের দায়িত্বে থাকা এসও রহুল আমিন এ বিষয়ে কোন খোজ খবর রাখেন না। তিনি অধিকাংশ সময় অফিসে না থেকে বাড়ীতে বসে সরকারী বেতন ভাতাদি উত্তোলন করেন। বিদ্যুত না থাকার কারনে প্রতিনিয়ন পানি সুবিধা থেকে বঞ্চিত হচ্ছেন। সরকারীভাবে জেনারেটরের ব্যবস্থা থাকলেও তেল না থাকার অভিযোগে পানি উত্তোলন করা হচ্ছে না।
বক্তাদের অভিযোগ তিস্তার ব্যারাজ কেপিআই-১ এলাকার সুবাধে জলঢাকা থেকে ২৫ কিলোমিটার পল্লী বিদ্যুতের নতুন লাইন তৈরি করা হয়। কিন্তু বিভিন্ন অযুহাতে মাসের পর মাস তাদের বিদ্যুত ও পানির জন্য ভোগান্তিতে পড়তে হচ্ছে। এ ব্যাপারে যোগাযোগ করা হলে যান্ত্রিক বিভাগের নির্বাহী প্রকৌশলী এজেএম শাসমুজ্জোহা বলেন, জলঢাকা থেকে দীর্ঘ ২৫কিলোমিটার বিদ্যুতের লাইন নিয়ে আসা হয়েছে। কিন্তু ঝড় বৃষ্টিতে রাস্তায় গাছ পড়ে গিয়ে বিদ্যুত বন্ধ হয়ে পড়ে। বিদ্যুতের দায়িত্বে থাকা এসও রহুল আমিন মাসের পর মাস অনুপস্থিত প্রসঙ্গে বলেন, এখানে কোন লোক আসতে চায় না, বাধ্য হয়ে কাজ করতে হচ্ছে। রহুল আমিনের অনুপস্থিতির বিষয়টি তদন্ত করে ব্যবস্থা নেয়া হবে। ডালিয়া জাতীয় শ্রমিক লীগ (সিবিএ) অফিসের সামনে সিবিএ সভাপতি বুলবুল আহম্মেদের সভাপতিত্বে বক্তব্য রাখেন, সিবিএ সম্পাদক সোহরাব হোসেন, এসও খন্দকার মিজানুর রহমান মিজান, অশোক কুমার বিশ্বাস, মোসলেম উদ্দিন, স্বপন পাটোয়ারী, আইয়ুব আলী, রফিকুল ইসলাম, অফিস সহায়ক আব্দুল হক প্রমুখ।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here