1. admin@bangla24bdnews.com : b24bdnews :
  2. robinmzamin@gmail.com : mehrab hossain provat : mehrab hossain provat
  3. maualh4013@gmail.com : md aual hosen : Md. Aual Hosen
  4. tanvirahmedtonmoy1987@gmail.com : shuvo khan : shuvo khan
মঙ্গলবার, ০২ জুন ২০২০, ০৮:৫৪ অপরাহ্ন

করোনা: ক্রেতা নেই, পচে যাচ্ছে তরিতরকারি!

স্টাফ রিপোর্টার (বাংলা ২৪ বিডি নিউজ):
  • আপডেট সময় : মঙ্গলবার, ৩১ মার্চ, ২০২০
  • ৮০

করোনা ভাইরাসের প্রভাব পড়েছে রাজধানীর কাঁচাবাজারে। উচ্চমাত্রার ছোঁয়াচে এ রোগের আতঙ্কে রাজধানীসহ সারাদেশে অঘোষিত লকডাউন চলছে। গণপরিবহন বন্ধ থাকলেও পণ্যবাহী ট্রাকসহ অন্যান্য পরিবহন চালু রয়েছে। দেশের বিভিন্ন প্রান্ত থেকে প্রতিদিনই রাজধানীর বিভিন্ন পাইকারি বাজারে বেগুন, টমেটো, চিচিঙ্গা, পটল, লাউ ও কুমড়াসহ বিভিন্ন তরিতরকারির চালান আসছে।

রাজধানীর বিভিন্ন কাঁচাবাজারে পর্য়াপ্ত তরিতরকারি থাকলেও টানা ১০দিনের সরকারি ছুটিতে লাখ লাখ মানুষ গ্রামে ফিরে যাওয়ায় এবং করোনা ভীতিতে নগরবাসিন্দা খুব বেশি প্রয়োজন না হলে বাজারমুখী না হওয়ায় বিক্রি আশঙ্কাজনকহারে কমে গেছে। অধিকাংশ তরিতরকারি দ্রুত পচনশীল হওয়ায প্রান্তিক চাষি থেকে বাজারে আসার পর স্বল্প সময়ের মধ্যে পচে যাচ্ছে। ফলে তরিতরকারি ব্যবসায়ীরা দুঃশ্চিন্তাগ্রস্ত হয়ে পড়েছেন।

আজ (মঙ্গলবার) সকালে সরেজমিন রাজধানীর কারওয়ানবাজার ঘুরে দেখা গেছে, ঢাকা সিটি করপোরেশনের পরিচ্ছন্নকর্মীরা বাজার থেকে পচে যাওয়া তরিতরকারি ছোট ছোট ময়লার ঠেলাগাড়িতে তুলে নিয়ে যাচ্ছেন। একটি ঠেলাগাড়ি ভর্তি চিচিঙ্গা দেখা যায়। প্রথম দৃষ্টিতে মনে হবে কেউ বোধহয় চিচিঙ্গাগুলো বিক্রির জন্য গাড়িতে রেখেছে।

jagonews24

একজন পরিচ্ছন্ন কর্মী জানালেন, কারওয়ানবাজার থেকে প্রতিদিনই পচে যাওয়া তরিতরকারি বর্জ্যবাহী গাড়িতে করে নিয়ে যাচ্ছেন। ইতোপূর্বে কখনও এত তরিতরকারি পচে যেতে ও ফেলে যেতে দেখেননি।

বাজারের একজন বেগুন ব্যবসায়ীকে ১০ টাকা কেজি দরে বেগুণ বিক্রি করতে দেখা যায়। এ সময় বিক্রেতা কয়েকজন ক্রেতাকে উদ্দেশ্যে করে বলছিলেন , ‘ঢাকা শহরে ১০ টাকা কেজিতে বেগুণ বিক্রি করতে হচ্ছে, করোনার কারণে এমন দিনও দেখতে হলো রে।’

বিভিন্ন পাড়ামহল্লার ভ্যানগাড়িতে করে জীবিকা নির্বাহ করেন অসংখ্য ক্ষুদ্র তরিতরকারি ব্যবসায়ী।

এ প্রতিবেদকের সঙ্গে আলাপকালে তারা জানান, ক্রেতার অভাবে তারাও তরিতরকারি বিক্রি করতে পারছেন না। পাইকারি বাজার থেকে বিক্রির জন্য খুব অল্প করে তরিতরকারি আনলেও তা বিক্রি হচ্ছে না।

এ অবস্থা চলতে থাকলে পরিবার-পরিজন নিয়ে জীবন বাঁচানো মুশকিল হয়ে পড়বে বলে মন্তব্য করেন তারা।

ফেসবুকে আমরা

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ বিভাগের আরও সংবাদ
এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা বা ছবি অনুমতি ছাড়া নকল করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি। সকল স্বত্ব www.bangla24bdnews.com কর্তৃক সংরক্ষিত
Customized By NewsSmart