1. admin@bangla24bdnews.com : b24bdnews :
  2. robinmzamin@gmail.com : mehrab hossain provat : mehrab hossain provat
  3. maualh4013@gmail.com : md aual hosen : Md. Aual Hosen
  4. tanvirahmedtonmoy1987@gmail.com : shuvo khan : shuvo khan
সোমবার, ০১ মার্চ ২০২১, ০৯:১৭ পূর্বাহ্ন

দল নিবন্ধন আইনে মতামত দেওয়ার সময় বাড়িয়েছে ইসি

স্টাফ রিপোর্টার (বাংলা ২৪ বিডি নিউজ):
  • আপডেট সময় : বুধবার, ৮ জুলাই, ২০২০
  • ৯১

রাজনৈতিক দলের নিবন্ধন আইন, ২০২০ এর খসড়ার ওপর দলগুলোর মতামত দেয়ার সময় বাড়িয়েছে নির্বাচন কমিশন (ইসি)। এই সময় ৭ জুলাই শেষ হওয়ার পর এখন ৩১ জুলাই পর্যন্ত বাড়ানো হয়েছে। এরপর আর সময় বাড়ানো হবে না বলে ইসির উপসচিব মো. আ. হালিম খান স্বাক্ষরিত এক চিঠিতে রাজনৈতিক দলগুলোকে জানানো হয়েছে।

জানা যায়, এর আগে ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগ ও বিএনপি করোনাকালের কথা বিবেচনা করে এর সময় বাড়ানো জন্য ইসির কাছে আবেদন করে। গতকাল (মঙ্গলবার) অবশ্য ইসি সচিব মো. আলমগীর বলেছিলেন, ‘রাজনৈতিক দলগুলোর নিবন্ধন আইন-২০২০’ এর খসড়ার ওপর মতামত দেয়ার জন্য সময় বাড়াচ্ছে নির্বাচন কমিশন (ইসি)। দল নিবন্ধন আইনের জন্য বিএনপি, আওয়ামী লীগসহ বেশকিছু দল মতামত দেয়নি। এ ছাড়া বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ মতামত দেয়ার জন্য সময় বাড়ানোর আবেদন জানিয়েছে। তাই সবকিছু বিবেচনা করে আরও কিছুদিন সময় বাড়ানোর সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে।’

গত ১৬ জুন রাজনৈতিক দল ও নাগরিক সমাজের কাছে আইনটির খসড়ার ওপর মতামত দেয়ার জন্য আহ্বান জানায় সংস্থাটি। ইসির বেঁধে দেয়া সময় অনুযায়ী আজ ৭ জুলাইয়ের মধ্যে মতামত দেয়ার কথা ছিল।

বর্তমানে নির্বাচন কমিশনে ৪১টি নিবন্ধিত রাজনৈতিক দল রয়েছে। নির্বাচনে অংশ নিতে চাইলে অবশ্যই ইসিতে দল হিসেবে নিবন্ধন নিতে হয়। প্রতি সংসদ নির্বাচনের আগে নিবন্ধন নেয়ার জন্য আবেদনের আহ্বান জানিয়ে গণবিজ্ঞপ্তি জারি করে কমিশন।

প্রস্তাবিত আইন অনুযায়ী আগামীতে নিবন্ধন নিতে দুটি শর্ত পূরণ করতে হবে। এ ছাড়া আইন হবে বাংলায়। এ জন্য ইউনিয়ন পরিষদ (ইউপি), পৌর ও সিটিকে বাংলায় পল্লী, নগর ও মহানগর রেখে নিবন্ধিত দল ও নাগরিকদের কাছে জনমত চাওয়া হয়েছে।

ইসি সূত্র জানায়, বিদ্যমান আরপিওতে (গণপ্রতিনিধিত্ব অধ্যাদেশ) নিবন্ধন পেতে তিনটি শর্তের একটি পূরণ করলেই হতো। এবার বলা হয়েছে- শর্তাদির যেকোনো দুটি পূরণ করতে হবে। এর মধ্যে একটি নতুন বিষয়ও যুক্ত করা হয়েছে। নিবন্ধনের আবেদনের সময় থেকে পূর্ববর্তী দুটি নির্বাচনে দলীয় প্রতীকে একটি আসন পেতে হবে।

বিদ্যমান আইনে বলা হয়েছে, স্বাধীনতা পরবর্তী সময়ে যেকোনো একটি আসন পেলেই হবে (অন্তত একটি সংসদীয় আসন পেতে হবে, নির্বাচনে ভোটের ৫ শতাংশ পেতে হবে, কেন্দ্রীয় অফিস এক-তৃতীয়াংশ জেলা কমিটি ইত্যাদি)।

আর রাজনৈতিক দলের সব স্তরের কমিটিতে ৩৩ শতাংশ নারী প্রতিনিধি পূরণে দলগুলোর গঠনতন্ত্রেই লক্ষ্যমাত্রা নির্ধারণের প্রস্তাব রাখা হয়েছে। অন্যদিকে দলের গঠনতন্ত্রে একদলীয় ব্যবস্থা বা দলবিহীন ব্যবস্থা সংরক্ষণ বা লালন করলে নিবন্ধন অযোগ্য হবে।

ফেসবুকে আমরা

এ বিভাগের আরও সংবাদ
এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা বা ছবি অনুমতি ছাড়া নকল করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি। সকল স্বত্ব www.bangla24bdnews.com কর্তৃক সংরক্ষিত
Customized By NewsSmart