1. admin@bangla24bdnews.com : b24bdnews :
  2. robinmzamin@gmail.com : mehrab hossain provat : mehrab hossain provat
  3. maualh4013@gmail.com : md aual hosen : Md. Aual Hosen
  4. tanvirahmedtonmoy1987@gmail.com : shuvo khan : shuvo khan
বুধবার, ১৪ এপ্রিল ২০২১, ১০:৫৬ অপরাহ্ন

মনিরামপুরের সাবেক ওসিকে আত্মসমর্পণের নির্দেশ

আদালত প্রতিবেদক (বাংলা ২৪ বিডি নিউজ):
  • আপডেট সময় : বুধবার, ২২ জানুয়ারী, ২০২০
  • ১৯৫

যশোরের মনিরামপুর থানার সাবেক ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মো. ছয়রুদ্দিন আহমেদকে দুর্নীতির মামলা থেকে অব্যাহতি দেয়ার আদেশ কেন বাতিল করা হবে না- তা জানতে চেয়ে রুল জারি করেছেন হাইকোর্ট। একইসঙ্গে নোটিশ প্রাপ্তির সাতদিনের মধ্যে বিচারিক আদালতে তাকে আত্মসমর্পণ করার নির্দেশ দিয়েছেন আদালত।

আদেশের বিষয়টি জাগো নিউজকে নিশ্চিত করেন ডেপুটি অ্যাটর্নি জেনারেল একেএম আমিন উদ্দিন মানিক।

ওসির অব্যাহতির আদেশ বাতিল চেয়ে দুদকের করা আবেদনের শুনানি নিয়ে বুধবার হাইকোর্টের বিচারপতি মো. নজরুল ইসলাম তালুকদার ও বিচারপতি কে এম হাফিজুল আলমের সমন্বয়ে গঠিত বেঞ্চ এই আদেশ দেন।

আদালতে আজ দুদকের পক্ষে আইনজীবী ছিলেন একেএম ফারহান। রাষ্ট্রপক্ষে ছিলেন ডেপুটি অ্যাটর্নি জেনারেল একেএম আমিন উদ্দিন মানিক ও সহকারী অ্যাটর্নি জেনারেল হেলেনা বেগম চায়না।

গত বছরের ৩ জুলাই যশোর স্পেশাল জজ (জেলা জজ) তাকে চার্জ শুনানির সময় মামলা থেকে অব্যাহতি দিয়েছিলেন। সেই অব্যাহতি আদেশের বিরুদ্ধে গত ১৫ জানুয়ারি হাইকোর্টে ফৌজদারি রিভিশন মামলা দায়ের করে দুদক।

ঘটনার বিবরণী উল্লেখ করে আমিন উদ্দিন মানিক জানান, যশোরের মনিরামপুর থানার নেহালপুর মৌজায় জনৈক প্রভাষ চন্দ্র ঘোষ ধান চাষ করেন। সেই জমিতে বিরোধ দেখা দিলে মো. ছয়রুদ্দিন আহমেদের হুকুমে প্রভাষ চন্দ্র ঘোষের ৫ একর জমির মধ্য থেকে ৫ বিঘা জমির ৬১ মণ ৫০০ কেজি ধান কেটে নিয়ে নেহালপুর বাজারে হাটচান্দিতে মাড়াই করিয়া গোডাউন ভাড়া করে রাখেন।

পরে ওই ধান আদালতের কোন অনুমতি না নিয়ে কোনরূপ নিলাম না ডেকে নিজের ইচ্ছামত ৪১ হাজার ৫০০ টাকা বিক্রি করেন। প্রভাষ চন্দ্রের অভিযোগ ওই ধান ও পরবর্তীতে টাকা ফেরত চাইলে ছয়রুদ্দিন ৫০ হাজার টাকা ঘুষ দাবি করেন। বাদী নিরুপায় হয়ে ২০ হাজার টাকা ঘুষ দেন। পরে ছয়রুদ্দিন প্রভাষকে ১৭ হাজার ৫০০ টাকা দেন।

এ ঘটনায় প্রভাষ চন্দ্র ২০১১ সালের ২৯ নভেম্বর যশোর জেলা ও দায়রা জজ আদালতে মামলা দায়ের করেন। মামলাটি দুদকের সহকারী পরিচালক মো. ওয়াজেদ আলী গাজী তদন্ত করে ২০১৬ সালের ৩০ আগস্ট প্রতিবেদন দাখিল করেন।

ফেসবুকে আমরা

এ বিভাগের আরও সংবাদ
এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা বা ছবি অনুমতি ছাড়া নকল করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি। সকল স্বত্ব www.bangla24bdnews.com কর্তৃক সংরক্ষিত
Customized By NewsSmart