1. admin@bangla24bdnews.com : b24bdnews :
  2. robinmzamin@gmail.com : mehrab hossain provat : mehrab hossain provat
  3. maualh4013@gmail.com : md aual hosen : Md. Aual Hosen
  4. tanvirahmedtonmoy1987@gmail.com : shuvo khan : shuvo khan
সোমবার, ০৬ জুলাই ২০২০, ১১:০৫ অপরাহ্ন

সাংবাদিক তুহিনকে পুলিশের মারধর: ঢাকা বারের নিন্দা

স্টাফ রিপোর্টার (বাংলা২৪ বিডি নিউজ):
  • আপডেট সময় : শুক্রবার, ১৭ এপ্রিল, ২০২০
  • ৮৮

রাজধানীর ওয়ারীতে বাংলাদেশ প্রতিদিনের আদালত প্রতিনিধি আইনজীবী তুহিন হাওলাদারকে মারধরের ঘটনায় ঢাকা আইনজীবী সমিতি তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়েছে। এছাড়াও ঘটনার সুষ্ঠু তদন্ত ও দোষীদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দাবি করেছে ঢাকা বার।

শুক্রবার ঢাকা আইনজীবী সমিতির সভাপতি ইকবাল হোসেন ও সাধারণ সম্পাদক হোসেন আলী খান হাসান; তুহিন হাওলাদারকে ওয়ারী থানা পুলিশ কর্তৃক শারীরিকভাবে লাঞ্ছিত করায় নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়ে বিবৃতি দেন।

বিবৃতিতে তারা বলেন, বিগত ১৬ এপ্রিল রাজধানীর টিকাটুলীর কেএম দাস লেন-এ ঢাকা আইনজীবী সমিতির সদস্য অ্যাডভোকেট তুহিন হাওলাদারকে ওয়ারী থানার এসআই মাহবুবুর রহমানসহ কয়েকজন পুলিশ মারাত্মকভাবে আহত করেন। বর্তমানে তিনি ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন আছেন। অ্যাডভোকেট তুহিন হাওলাদারকে শারীরিকভাবে লাঞ্ছিত করার ঘটনায় ঢাকা আইনজীবী সমিতি তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানাচ্ছে এবং ঘটনার সুষ্ঠু তদন্ত ও দোষীদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দাবি করছে।

এর আগে তুহিন হাওলাদারকে মারধরের ঘটনায় অভিযুক্ত ওয়ারী থানার উপপরিদর্শক (এসআই) মাহবুবুর রহমানকে ক্লোজড (প্রত্যাহার) করে ডিসি কার্যালয়ে সংযুক্ত করা হয়েছে।

বৃহস্পতিবার (১৬ এপ্রিল) সন্ধ্যায় ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের (ডিএমপি) ওয়ারী বিভাগের উপ-কমিশনার (ডিসি) শাহ ইফতেখার আহমেদ জানান, ঘটনার প্রাথমিক তথ্যের ভিত্তিতে ওই অভিযুক্ত এসআইকে প্রত্যাহার করা হয়েছে। ওয়ারী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তাকে (ওসি) একটি প্রতিবেদন দাখিল করতে বলা হয়েছে।

ডিসি বলেন, ‘ঘটনার তদন্ত হবে। তদন্তে দোষী সাব্যস্ত হলে বিভাগীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।’

এর আগে বৃহস্পতিবার দুপুরে টিকাটুলীর কে এম দাস রোডে বাংলাদেশ প্রতিদিনের আদালত প্রতিনিধি আইনজীবী তুহিন হাওলাদারকে মারধর করে ওয়ারী থানা পুলিশ। রক্তাক্ত অবস্থায় সাংবাদিক তুহিনকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

আহত তুহিন বলেন, ‘দুপুরে কে এম দাস রোডে ওয়ারী থানার এসআই মাহবুবুর রহমানসহ একজন পুলিশ ও একজন আনসার সদস্য আমার বাইক থামাতে বলেন। বাইক থামালে ঘর থেকে কেন বের হয়েছি বলেই মারধর করেন। তারা আমাকে কোনো কথাই বলতে দেননি।’

ফেসবুকে আমরা

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ বিভাগের আরও সংবাদ
এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা বা ছবি অনুমতি ছাড়া নকল করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি। সকল স্বত্ব www.bangla24bdnews.com কর্তৃক সংরক্ষিত
Customized By NewsSmart